রাঙামাটি । রোববার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ , ১২ ফাল্গুন ১৪৩০

ব্রেকিং

স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা ডেস্কঃ-

প্রকাশিত: ১১:০০, ৩০ জানুয়ারি ২০২৩

সময়মতো খাবার না খেলেই বিপদ

সময়মতো খাবার না খেলেই বিপদ

জীবন-যাপনে টাইম মেইনটেইন করাটা জরুরি। সময়ের কাজ সময়ে সম্পাদন করতে পারলে জীবনে সফলতা আসে, শান্তি আর স্বস্তি আসে। তবে আমরা যাই করি না কেন, সময় মতো খাবার গ্রহণ না করলে শক্তি পাই না। অনেক সময় ব্যস্ততার দোহাই দিয়ে দেরি করে খাবার গ্রহণ করি। এতে আমাদের শরীর ও মন ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

অনেক সময় দেখা যায় সকালের নাশতা দুপুরে, দুপুরের খাবার বিকেলে আবার রাতের খাবার অনেক দেরি করে খাওয়া হয়। যা আমাদের শরীরের জন্য অনেক ক্ষতিকর। সময় মতো খাবার না খেলে শরীর খুব দ্রুত ক্লান্ত হয়ে যায়। আমাদের মস্তিষ্কের কার্যক্ষমতা অনেক কমে যায়।

এছাড়া বদহজম, গ্যাস ও অম্বল হওয়ার আশঙ্কা তো আছেই। সেজন্য আমাদের সবাই উচিৎ সময় মতো খাবার গ্রহণ করা। আসুন জেনে নেই সময় মতো খাবার না খেলে আমাদের কী কী ক্ষতি হতে পারে:

১. সময়মতো খাবার না খাওয়ার ফলে গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা দেখা দেয়। বর্তমানে বেশিরভাগ মানুষ এই সমস্যায় ভুগছেন। তাই সবার উচিত সময়মতো খাবার খাওয়া। 

২. খাবার একবারে বেশি করে না খেয়ে সঠিক সময়ে অল্প অল্প করে খাওয়া উচিত। এতে আমাদের হজম প্রক্রিয়া ভালো থাকবে এবং একই সঙ্গে শরীরের অতিরিক্ত মেদ জমতে পারবে না। ফলে আমাদের স্বাস্থ্যও ভালো থাকবে।

৩. সময়মতো খাবার না খেলে আমাদের শরীর অনেক মুটিয়ে যায়। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, আমাদের শরীর মুটিয়ে যাওয়ার অন্যতম কারণ হলো অসময়ে খাবার খাওয়া। সঠিক সময়ে খাবার না খাওয়ার ফলে সঠিকভাবে হজম হয় না এবং শরীরে অতিরিক্ত শর্করা জমতে শুরু করে। ফলে শরীরের মেদ বেড়ে যায়।

৪. খাবার সঠিক সময়ে না খাওয়ার ফলে ৪০ বছর পার হওয়ার আগেই আমাদের শরীর দ্রুতই ভেঙ্গে পড়ে, যার কারণে আমাদের শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা অনেক কমে যায়। এছাড়াও গ্যাস্ট্রিক, আলসার, ওজনহীনতার মতো মারাত্মক কিছু রোগের আশঙ্কা দেখা দেয়।

৫. সময়মতো খাবার না খেলে আমাদের বয়সের ছাপ পড়ে যায়। হার্টের সমস্যা দেখা দেয়।

৬. কোনো অন্তঃসত্ত্বা নারী যদি তার খাবার নিয়ম অনুসারে না খান, তাহলে তার অনাগত সন্তানের ওপর এর নানা ক্ষতিকর প্রভাব পড়ে।

তাই অবশ্যই সময়মতো খাবার খেতে হবে।

হেলথলাইন অবলম্বনে