রাঙামাটি । শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪ , ২৮ আষাঢ় ১৪৩১

ব্রেকিং

গভীর রাতে কাপ্তাইয়ের কেপিএমে আগুন, উৎপাদন বন্ধবন্যপ্রাণী বাঁচাতে হলে পরিবেশ ও আবাসস্থল ঠিক রাখতে হবেরাঙামাটিতে ছেলে ধরা সন্দেহে আটক ১বগুড়ায় একই পরিবারের নিখোঁজ ৭ জনকে রাঙামাটিতে উদ্ধারক্ষুদ্র নারী উদ্যোক্তাদের আর্থিক অনুদান দিলো রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদপরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় বৃক্ষরোপণের বিকল্প নেই: দীপংকর তালুকদারনারী পাচার চক্রের তিন চাকমা সদস্যকে জেল হাজতে প্রেরণবাঘাইছড়িতে বন্যার পানিতে তলিয়ে নিখোঁজ শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধারটানা বর্ষণে কাপ্তাই হ্রদে পানি বৃদ্ধি, চার ইউনিটে বিদ্যুৎ উৎপাদন ১৬৪ মেগাওয়াটখাগড়াছড়িতে পাহাড়ধস: ৩ ঘণ্টা পর যান চলাচল স্বাভাবিকতিন দিনের সফরে রাঙামাটি আসছেন রাষ্ট্রপতিরাঙামাটিতে পাহাড় ধসের সর্তকতায় মাইকিং, প্রস্তুত ২৬৭ আশ্রয়কেন্দ্ররাঙামাটিতে জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা অনুষ্ঠিতবাঘাইছড়ি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন ২৭ জুলাই, ভোট ইভিএমে

নিউজ ডেস্কঃ-

প্রকাশিত: ১১:৪১, ২৩ জুন ২০২৪

আজ থেকে পুনরায় চলবে মৈত্রী এক্সপ্রেস

আজ থেকে পুনরায় চলবে মৈত্রী এক্সপ্রেস

বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে চলাচলকারী মৈত্রী এক্সপ্রেস ট্রেনটি আজ রোববার (২৩ জুন) থেকে পুনরায় চলাচল শুরু করবে। ঈদুল আজহা উপলক্ষে গত ১৪ জুন থেকে ট্রেনটির চলাচল বন্ধ ছিল। এবার ঈদ উপলক্ষে দেশের অভ্যন্তরের যাত্রীদের সর্বোচ্চ সেবা দিতে বাংলাদেশ  থেকে ভারতে চলাচলকারী তিনটি আন্তঃদেশীয় ট্রেন পাঁচ দিন পুরোপুরি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। দৈনিক ইত্তেফাক

রেলওয়ে কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, আন্তঃদেশীয় যাত্রীবাহী ট্রেনসমূহের মধ্যে ১৪ জুন থেকে ২২ জুন পর্যন্ত মৈত্রী এক্সপ্রেসের  চলাচল বন্ধ থাকবে। আর ১২ জুন থেকে ২০ জুন পর্যন্ত মিতালী এক্সপ্রেস এবং ১৬ জুন থেকে ২০ জুন পর্যন্ত বন্ধন এক্সপ্রেসের চলাচল বন্ধ ছিল? গত ২১ জুন  থেকে চলাচল শুরু হয় এই  ট্রেন দুটির।

আজ রোববার থেকে মৈত্রী এক্সপ্রেস চালু হলে আবারও বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে পুরোদমে রেল যোগাযোগ শুরু হবে।

মৈত্রী এক্সপ্রেস ঢাকা থেকে কলকাতা, মিতালী এক্সপ্রেস শিলিগুড়ি  থেকে ঢাকা এবং বন্ধন এক্সপ্রেস কলকাতা থেকে বাংলাদেশের খুলনা শহরের মধ্যে যাতায়াত করে।

কমলাপুরে  ট্রেনের পাওয়ারকারে আগুন :রাজধানীর কমলাপুর  রেল  স্টেশনে  ট্রেনের পাওয়ারকারে আগুন লাগার ঘটনা ঘটেছে। তবে  স্টেশনের  লোকজনের  চেষ্টায় দ্রুত আগুন  নেভানো সম্ভব হয়েছে। গতকাল শনিবার বিকাল ৩টার দিকে এ আগুন লাগে। এতে  কেউ হতাহত হননি।

ফায়ার সার্ভিস সদর দপ্তরের ডিউটি অফিসার রোজিনা আক্তার জানান, ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট ঘটনাস্থলে যাওয়ার আগেই আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে।

স্টেশন সূত্র জানায়, চট্টলা এক্সপ্রেস নামের ঐ ট্রেনে অনেক যাত্রী ছিলেন। আগুন লাগার পর তারা দ্রুত ট্রেন থেকে নেমে যান। পাওয়ারকারে অতিরিক্ত গরমের কারণে আগুন লেগেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

স্টেশন ম্যানেজারকে দেখতে হাসপাতালে রেলমন্ত্রী: হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন কমলাপুর  রেল স্টেশন ম্যানেজার মাসুদ সারওয়ারকে দেখতে হাসপাতালে গেলেন রেলমন্ত্রী মো. জিল্লুল হাকিম। গতকাল মন্ত্রী রাজধানীর গ্রীন লাইফ হাসপাতালে তাকে  দেখতে যান। এ সময় তিনি  স্টেশন ম্যানেজার মাসুদের চিকিৎসার খোঁজখবর নেন, ডাক্তারের সঙ্গে কথা বলেন এবং দ্রুত সুস্থতা কামনা করেন।

মন্ত্রী বলেন, ‘ঈদ যাত্রাকে সফল করার জন্য ওনার কর্মতৎপরতা ছিল প্রশংসনীয়  এবং আশা করছি খুব  দ্রুতই তিনি তার কর্মক্ষেত্রে ফিরে যেতে পারবেন।’

কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে ম্যানেজারের শারীরিক অবস্থা জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘ওনার অবস্থা আগের চেয়ে ভালো। আমরা সার্বক্ষণিক খোঁজখবর রাখছি। যে কোনো প্রয়োজনে তার পাশে আছি।’

ইত্তেফাক

জনপ্রিয়