রাঙামাটি । শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪ , ২৮ আষাঢ় ১৪৩১

ব্রেকিং

গভীর রাতে কাপ্তাইয়ের কেপিএমে আগুন, উৎপাদন বন্ধবন্যপ্রাণী বাঁচাতে হলে পরিবেশ ও আবাসস্থল ঠিক রাখতে হবেরাঙামাটিতে ছেলে ধরা সন্দেহে আটক ১বগুড়ায় একই পরিবারের নিখোঁজ ৭ জনকে রাঙামাটিতে উদ্ধারক্ষুদ্র নারী উদ্যোক্তাদের আর্থিক অনুদান দিলো রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদপরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় বৃক্ষরোপণের বিকল্প নেই: দীপংকর তালুকদারনারী পাচার চক্রের তিন চাকমা সদস্যকে জেল হাজতে প্রেরণবাঘাইছড়িতে বন্যার পানিতে তলিয়ে নিখোঁজ শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধারটানা বর্ষণে কাপ্তাই হ্রদে পানি বৃদ্ধি, চার ইউনিটে বিদ্যুৎ উৎপাদন ১৬৪ মেগাওয়াটখাগড়াছড়িতে পাহাড়ধস: ৩ ঘণ্টা পর যান চলাচল স্বাভাবিকতিন দিনের সফরে রাঙামাটি আসছেন রাষ্ট্রপতিরাঙামাটিতে পাহাড় ধসের সর্তকতায় মাইকিং, প্রস্তুত ২৬৭ আশ্রয়কেন্দ্ররাঙামাটিতে জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা অনুষ্ঠিতবাঘাইছড়ি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন ২৭ জুলাই, ভোট ইভিএমে

খেলা ডেস্ক-

প্রকাশিত: ০৯:২২, ১০ জুলাই ২০২৪

ফ্রান্সকে হারিয়ে ইউরোর ফাইনালে স্পেন

ফ্রান্সকে হারিয়ে ইউরোর ফাইনালে স্পেন
সংগৃহীত ছবি

লামিনে ইয়ামাল। মাত্র ১৬ বছর বয়স্ক এক পুঁচকে। যাকে নিয়ে খুব একটা ভাবতে হবে না বলে ম্যাচের আগেরদিন মন্তব্য করেছিলেন ফরাসি ডিফেন্ডার আদ্রিয়ান রাবিওট। আর তার সামনে দিয়েই এবারের ইউরোর সবচেয়ে দর্শনীয় গোলগুলোর একটি করলেন লামিনে। দলকে নিয়ে গেলেন ফাইনালে।

চলমান ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম সেমিফাইনালে ফ্রান্সকে ২-১ গোলে হারিয়েছে স্পেন। স্পেনের হয়ে একটি করে গোল করেন লামিনে ইয়ামাল ও ডানি ওলমো। ফ্রান্সের একমাত্র গোলদাতা কোলো মুয়ানি।

জার্মানির মিউনিখে হাই ভোল্টেজ ম্যাচে গোলের জন্য ছয়টি শট নিয়েছে স্পেন, যেখানে লক্ষ্যে ছিল দুটি। অন্যদিকে আটটি শট নেয়া ফ্রান্স তিনটি লক্ষ্যে রাখতে পারে। বল দখলের লড়াইয়ে ৫৯ শতাংশ এগিয়ে স্পেন, ফ্রান্সের কাছে ছিল ৪১ শতাংশ সময়।

আজ ম্যাচের একদম শুরু থেকেই আক্রমণ আর প্রতি আক্রমণে ব্যস্ত হয়ে পড়ে দুই দল। এরই মাঝে নবম মিনিটে এমবাপ্পের অ্যাসিস্টে হেড থেকে লক্ষ্যভেদ করে ফ্রান্সকে এগিয়ে দেন কোলো মুয়ানি। যা চলতি আসরে ওপেন প্লে থেকে দলটির প্রথম গোল।

ফ্রান্সের এই স্বস্তি টিকে ছিল মাত্র ১২ মিনিট। ম্যাচের ২১ মিনিটে আসরের অন্যতম সেরা এক গোল উপহার দেন লামিনে ইয়ামাল। মাত্র ১৬ বছর বয়সে গোল করেন এই স্প্যানিশ উইঙ্গার। হয়ে যান ইউরোর ইতিহাসে সর্বকনিষ্ঠ গোলদাতা।

ইয়ামালের গোলের রেশ না কাটতেই ২৫ মিনিটের মাথায় এগিয়ে যায় স্পেন। এবার ডানি ওলমোর শট ক্লিয়ার করতে গিয়ে উল্টো বল নিজেদের জালে জড়ান ফরাসি ডিফেন্ডার জুলস কুন্দে। তবে অন টার্গেট থাকায় গোলদাতার স্বীকৃতি পান ওলমো।

প্রথমার্ধের বাকি সময়ে আর গোলের দেখা পায়নি কোনো দল। দ্বিতীয়ার্ধে দুই দলই সুযোগ মিসের মহড়া সাজায়। বেশ কিছু আক্রমণ সাজালেও ডি বক্সের কাছে গিয়ে খেই হারিয়ে ফেলেন দুই দলের ফুটবলাররা।

রেফারি শেষ বাঁশি বাজানোর সঙ্গে সঙ্গে আনন্দে মেতে ওঠে স্পেনের ডাগআউট। অন্যদিকে হতাশায় মুষড়ে পড়ে ফরাসিরা। আগামী ১৪ জুলাই দিবাগত রাতে ইংল্যান্ড বনাম নেদারল্যান্ডস ম্যাচের মধ্যকার বিজয়ী দলের মুখোমুখি হবে তারা।

জনপ্রিয়